ad720-90

ফোনের অবস্থান ট্র্যাক করায় গুগলের বিরুদ্ধে মামলা


আপনার অবস্থান সব সময় নজরদারি করে গুগল। আপনার স্মার্টফোনের লোকেশন ট্র্যাক ফিচার বন্ধ করলেও লাভ নেই। গুগল তারপরও আপনার অবস্থান ট্র্যাক করতে পারে। গুগল এভাবেই ব্যবহারকারীর প্রাইভেসি লঙ্ঘন করছে বলে অভিযোগ উঠেছে।

সম্প্রতি যুক্তরাষ্ট্রের ক্যালিফোর্নিয়ায় এ বিষয় নিয়ে গুগলের বিরুদ্ধে মামলা করেছেন এক ব্যক্তি। তাঁর অভিযোগ, লোকেশন হিস্ট্রি সেটিংস বন্ধ করার পরও স্মার্টফোন ব্যবহারকারীর অবস্থান জানতে ট্র্যাকিং চালায় গুগল, যা প্রাইভেসির লঙ্ঘন। শুক্রবার ক্লাস-অ্যাকশন মামলা হিসেবে ওই মামলা করা হয়, যাতে যুক্তরাষ্ট্রের আইফোন ও অ্যান্ড্রয়েড ব্যবহারকারীদের প্রাইভেসি ভঙ্গের অভিযোগ আনা হয়েছে।

ওই ব্যক্তির অভিযোগ, গুগল বলে, তাদের অপারেটিং সিস্টেম ও অ্যাপসের ক্ষেত্রে নির্দিষ্ট কিছু সেটিংস চালু করলে ট্র্যাকিং বন্ধ হবে। কিন্তু এ কথা মিথ্যা।

এ অভিযোগ ও মামলা বিষয়ে মুখ খোলেনি গুগল কর্তৃপক্ষ।

অবশ্য, ওই অভিযোগের পরপরই অ্যালফাবেটের মালিকানাধীন গুগল তাদের সাপোর্ট পেজটিতে পরিবর্তন এনেছে। এতে বলা হয়েছে, লোকেশন হিস্ট্রি বন্ধ করলে তা ডিভাইসে থাকা অন্যান্য লোকেশন সেবা, যেমন গুগল লোকেশন সার্ভিস বা ফাইন্ড মাই ডিভাইসের ওপর প্রভাব ফেলে না।

সাপোর্ট পেজের তথ্য অনুযায়ী, লোকেশন ডেটা ট্র্যাক করে ম্যাপ বা সার্চের মতো অন্যান্য সেবায় ব্যবহার করে গুগল। এর আগে গুগলের ওই পেজে বলা হয়েছিল, লোকেশন হিস্ট্রি বন্ধ করলে ব্যবহারকারী কোথায় যান তা ট্র্যাক করে না গুগল।

দ্য ইলেকট্রনিক প্রাইভেসি ইনফরমেশন সেন্টার নামের একটি অলাভজনক সংস্থার ভাষ্য, তারা যুক্তরাষ্ট্রের ফেডারেল ট্রেড কমিশনের কাছে গুগল কোনো নিয়ম ভেঙেছে কি না, তা খতিয়ে দেখতে চিঠি দিয়েছে।





সর্বপ্রথম প্রকাশিত

Sharing is caring!

Comments

So empty here ... leave a comment!

Leave a Reply

Sidebar



adapazarı escort adapazarı escort adapazarı escort adapazarı escort adapazarı escort sakarya travesti webmaster forum