ad720-90

নতুন আতঙ্কের নাম ‘মমো’ | Lastnewsbd.com


Sunday, 26th August , 2018, 04:54 pm,BDST

Print Friendly, PDF & Email


লাস্টনিউজবিডি, ২৬ আগস্ট, নিউজ ডেস্ক:  ব্লু হোয়েল গেমের রেশ কাটতে না কাটতেই এবার অনলাইনে নতুন করে আতঙ্ক ছড়াচ্ছে মমো। সামাজিক যোগাযোগের জনপ্রিয় মাধ্যম হোয়াটসঅ্যাপের মাধ্যমে বিশ্বজুড়ে ছড়িয়ে পড়েছে এটি। ইতোমধ্যে ল্যাটিন আমেরিকা, আফ্রিকা, ইউরোপের বিভিন্ন দেশে সতর্কতা জারি করা করেছে। এমন কি আমাদের পার্শ্ববর্তী দেশ ভারতেও ছড়িয়ে পড়েছে অনলাইন গেম মমো।

তথ্য প্রযুক্তি বিশেষজ্ঞরা হুশিয়ারি উচ্চারণ করে বলছেন, ‘মমো’ একটি সাইকোলজিক্যাল ফেনোমেনা গেম। যা তরুণ প্রজন্মকে করুণ পরিণতির দিকে নিয়ে যেতে পারে।

মমো দেখতে শিহরণ জাগানিয়া। গায়ের চামড়া ফ্যাকাসে। ঠিকরে বের হয়ে আসা চোখ আর বাইরের দিকে প্রসারিত লাল লাল ঠোট। যা দেখে গেমে অংশ নিতে প্রলুব্ধ হতে পারে যে কেউ।

ভয়ংকর গেম ‘মমো’র বাংলাদেশে ছড়িয়ে পড়া ঠেকাতে ইতোমধ্যেই ব্যবস্থা নিতে শুরু করেছে আইনশৃঙ্খলা বাহিনী। এ প্রসঙ্গে ডিএমপির সাইবার ক্রাইম ইউনিটের অতিরিক্ত উপ-পুলিশ কমিশনার মো. নাজমুল ইসলাম বলেন, ডার্কওয়েবের মাধ্যমে ছড়াতে পারে কথিত এই গেইম। ইতিমধ্যে এসব ডার্কওয়েব লিংকগুলো বন্ধ করে দেওয়ার জন্য ব্যবস্থা নিচ্ছি আমরা। ডিএমপির সাইবার ক্রাইম ইউনিট এই মমোকে রুখতে প্রস্তুত রয়েছে।

তিনি আরো বলেন, আমরা আমাদের ব্যবস্থা নিব। তবে সাধারন মানুষদেরও কিছু পদক্ষেপ নিতে হবে। ডিএমপির সাইবার ক্রাইম ইউনিটের পক্ষ হতে মমোকে রুখতে কিছু পরামর্শ দেওয়া হয় নেটিজেনদের জন্য।

পরামর্শগুলো হল-

১. মমোর কথা বলে কিছু শৌখিন বা ভণ্ড প্রোগ্রামার গুজব ছড়িয়ে জাতিকে ব্যস্ত রাখতে ফেক মমো বাজারজাত করে ভিন্ন স্বার্থ হাছিলে তৎপর থাকতে পারে সেটা মাথায় রাখতে হবে।

২. অনেক সময় মমোকে পুঁজি করে কেউ নাইজেরিয়ান স্ক্যামের মতো অপরাধে জড়িয়ে পরতে পারে। সেটা পরখ করাটাও জরুরি।

৩. কোনভাবেই মমো নামের কোন আসল বা ফেইক লিংককে ‘acknowledge’ করা যাবে না। নইলে সাইকোলজিক্যাল প্রভাবকে এড়াতে পারবেন না।

৪. টিনেজারদের যতদূর সম্ভব নেট তথা ডার্কওয়েব থেকে দূরে রাখবেন। সে ক্ষেত্রে অভিভাবক এবং শিক্ষকগণের ভূমিকা অনস্বীকার্য।

৫. কেউ কোনভাবে মমোর আসক্তিতে ডুবে গেলে হইচই না করে মনোরোগ বিশেষজ্ঞের পরামর্শ নিন, পাশাপাশি পুলিশের সাইবার ক্রাইম ইউনিটে যোগাযোগ করুন। সেখানে প্রযুক্তিগত বিষয়ে কাউসেলিং এর ব্যবস্থা আছে।

৬. আতংকিত হবেন না এবং কোনভাবেই আতংক ছড়াবেন না, তাতে আশপাশের মানুষ বিভ্রান্ত হতে পারে।

৭. মমো সংক্রান্ত যে কোন বিষয়ে তথ্য প্রদান ও সেবা গ্রহণে ডিএমপি এর সাইবার নিরাপত্তা ও অপরাধ দমন বিভাগের সাথে যোগাযোগ রাখুন।

লাস্টনিউজবিডি/এমবি

Print Friendly, PDF & Email





সর্বপ্রথম প্রকাশিত

Sharing is caring!

Comments

So empty here ... leave a comment!

Leave a Reply

Sidebar



adapazarı escort adapazarı escort adapazarı escort adapazarı escort adapazarı escort sakarya travesti webmaster forum